যতই দেখি 

স্বপন মুখোপাধ্যায় 
শ্যামল ঘেরা এই বনানী
খুশিতে মন ভরে,
গঙ্গাফড়িং ঘাসে ঘাসে
লাফায় জোরে জোরে।
শাপলা ফোটা শালুক ফোটা
শান্ত দীঘির জলে,
পান্সি করে বেড়ায় ঘুরে
পরাণ মাঝির ছেলে।
শিশির জমা মুক্তো জমা
কচু পাতার বুকে,
হলুদ রঙা জলফড়িংরা
খেলছে দারুণ সুখে।
শিউলি ফুলের সুবাস মেখে
বইছে হাওয়া ধীরে,
আলোর মতো কাশ ফুটেছে
বড়ো নদীর তীরে।
নীল আকাশে সকালবেলার
শঙ্খচিলরা ওড়ে,
যতই দেখি অবাক হয়ে
দেখতে ইচ্ছে করে।
এই লেখাটি শেয়ার করুন

সম্পাদকের কথা

লেখালিখি ও সৃজনশীল সাহিত্য রচনার চেষ্টা খুবই সহজাত এবং আবেগের দুর্নিবার আকর্ষণ নিজের গভীরে কাজ করে। পাশাপাশি সম্পাদনা ও প্রকাশনার জন্য বিশেষ তাগিদে অনুভব করি। সেই প্রেরণায় ছাইলিপির সম্পাদনার কাজে মনোনিবেশ এবং ছাইলিপির পথচলা। ছাইলিপিতে লিখেছেন, লিখছেন অনেকেই। তাদের প্রতি আমার অশেষ কৃতজ্ঞতা। এই ওয়েবসাইটের প্রতিটি লেখা মূল্যবান। সেই মূল্যবান লেখাকে সংরক্ষণ করতে লেখকদের কাছে আমরা দায়বদ্ধ। কোন লেখার মধ্যে বানান বিভ্রাট থাকলে সেটির জন্য আন্তরিক দুঃখ প্রকাশ করছি। ছাইলিপি সম্পর্কিত যে কোন ধরনের মতামত, সমালোচনা জানাতে পারেন আমাদেরকে । ছাইলিপির সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ ।